কালীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্রীর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধারের ঘটনায় মুল হোতা মিলনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব

ঝিনাইদহ সংবাদ; ডেস্ক ঃ   কালীগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্রী কেয়ার বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধারের ঘটনায় মুল হোতা মিলনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।সোমবার দুপুরে চুয়াডাঙ্গা জেলার জীবননগর থানার হাসাদাহ এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।কেয়া হত্যার প্রধান আসামী মিলন কালীগঞ্জের ত্রিলোচনপুর এলাকার সলেমানের ছেলে। গ্রেফতারকৃত মিলন ছাড়াও এই চাঞ্চল্যকর কেয়া হত্যা মামলায় অপর দুই আসামী এখনো পলাতক রয়েছে।

উল্ল্যেক্ষ, গত ২৬ ফেব্রুয়ারী কেয়া নিজ বাড়ী থেকে নিখোজ হয়। নিখোজের ১৭দিন পর ১৩ই মার্চ   ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার দাদপুর-ত্রিলোচনপুর মাঠের মধ্যবর্তী স্থান থেকে কেয়া খাতুন (১৬)এর অর্ধ-গলিত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত ছাত্রীর পিতা সামাউল আলম জামা-কাপড় ও পায়ের সেন্ডেল দেখে লাশ সনাক্ত করে কেয়ার পরিবার।

সেই দিনই নিহতের পরিবার একটি হত্যা মামলা দায়ের করে কালীগঞ্জ থানায়।এরই ধারাবাহিকতায় এই চাঞ্চল্যকর কেয়া হত্যা মামলার আসামীকে গ্রেফতার করে র‌্যাব।